Saturday, July 10, 2021

Top 5 Web Series in Bangladesh

Taqdeer (2020), Money Honey (2019), August 14 (2020), Mohanagar (2021), Contract (2021) web series.
Top 5 Web Series in Bangladesh

Five /5 top web series in Bangladesh. Taqdeer (2020), Money Honey (2019), August 14 (2020), Mohanagar (2021), Contract (2021) web series.  

মহানগর কে বাংলাদেশের সেরা ওয়েব সিরিজ বলা হচ্ছে কিন্তু আসলেই কি মহানগর বাংলাদেশের ইতিহাসের সেরা ওয়েব সিরিজ? আমার দৃষ্টিতে মোটেও নাহ কিন্তু কেন?
আমার পছন্দের সেরা পাচটা ওয়েব সিরিজের সংক্ষিপ্ত রিভিউ দেওয়া চেষ্টা করলাম আর সেই তালিকায় চতুর্থ স্থানে মহানগর। 


জনরা-ক্রাইম, থ্রিলার, মিস্ট্রি
ডিরেক্টর -শাওকী সৈয়দ, সালেহ সোবহান আনীম
কাস্ট-চঞ্চল চৌধূরী, সোহেল মন্ডল, সানজিদা
 রেটিং - ৮.৫
রিলিজ -১৮ ডিসেম্বর ২০২০

তাকদীর কোন মাপের ওয়েব সিরিজ ছিল সেটা প্রায় সবারই জানা। শাওকি সৈয়দ আর সালেহ সোবহান সানীম এর পরিচালনায় এই কুল থ্রিলার ওয়েব সিরিজটি সবার কাছে মাস্টারপিস ছিল। চঞ্চল চৌধুরীর অভিনয় পুরো ওয়েব সিরিজটি মাতিয়ে রেখেছিল বিশেষ করে ভাইসা চরিত্রে সোহেল মন্ডলের অভিনয় মনে দাগ কাটার মত ছিল। অন্তত মনে দাগ কেটে থাকার মত মহানগরে কিছু পাইনি। তাকদীরের প্রতিটা এপিসোড আমার কাছে এডভেঞ্চার টাইপের ছিল।তাই পছন্দের তালিকায় প্রথম স্থান তাকদীরই থাকবে।


জনরা- ক্রাইম, থ্রিলার, মিস্ট্রি
ডিরেক্টর - তানিম নূর, কৃষ্ণেন্দু চট্টোপাধ্যায় 
কাস্ট- শ্যামল মওলা,মোস্তাফিজুর নূর রহমান,লুৎফর, সুমন আনোয়ারা,নিশাত প্রিয়ম
পারসোনাল রেটিং- ৮
রিলিজ - ২৬ জুন ২০১৯

ঢাকায় ঘটে যাওয়া দুর্ধর্ষ ব্যাংক ডাকাতির কাহিনী একটি সত্য ঘটনা অবলম্বনে নির্মিত হয়েছে মানি হানি নামে এই ওয়েব সিরিজ। শাহরিয়ার কবির (শ্যামল মওলা) যিনি ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ এ কাজ করেন।শেয়ার বাজারে বিপর্যয় নেমে আসলে বিশাল পরিমান টাকার ক্ষতি মুখে পরেন। ওইদিকে মুস্তাফিজুর নূর ইমাম( সোহেল) বিদেশ থেকে তিল তিল করে জমানো টাকা রাখে মামার কাছে রাখে সেই টাকা মামা জুয়ায় শেষ করে দেয় সাথে মামার নিজের সম্পত্তিটুকুও। মোটামুটি তিনই তিনজন সর্বস্বান্ত, নিঃস্ব। তিনজন মিলে প্লানিং করে মাটি খুড়ে ব্যাংক ডাকাতি করবে। ওইদিকে ব্যাংক ডাকাতির বিষয়টির ইনভেস্টিগেশন করার দায়িত্ব পরে দুর্ধর্ষ পুলিশ অফিসার অমিতাবের উপর। গল্প এখানেই জমে ক্ষীর। তারা কি পারবে ব্যাংক ডাকাতি করতে যদিও পারে তাহলে অতিতাবের (পুলিশ অফিসার) এর হাত থেকে কিভাবে বাচবে, জানতে হলে দেখতে হবে এই অসাধারণ থ্রিলার ওয়েব সিরিজটি।
 প্রত্যেকে নিজ নিজ জায়গা থেকে দারুন অভিনয় করেছে। এই ওয়েব সিরিজটির বিজিএম, সিনেমাগ্রাফি আর টানটান উত্তেজনা আপনাকে পুরো মাতিয়ে রাখবে।


জনরা- ক্রাইম,থ্রিলার, ড্রামা
ডিরেক্টর -শিহাব শাহীন 
কাস্ট- তাসনুভা তিশা,শতাব্দী ওয়াদুদ, মনিরা মিঠু
পারসোনাল রেটিং -৭.৫
রিলিজ - ১৪ আগষ্ট ২০২০

রাজধানীর চামিলিবাগে ২০১৩ সালে ১৪ আগষ্টে রাকিবুল ইসলাম ও তার স্ত্রী হত্যার একটি সত্য ঘটনা নিয়ে নির্মাণ করেন পরিচালক শিহাব শাহীন "১৪ আগষ্ট " নামে এই ওয়েব সিরিজটি। তাসনুভা তিশা এখানে বেশ সাহসিকতার পরিচয় দিয়েছেন। আমাদের দেশীয় ১৮+ কন্টেন্ট খুব একটা দেখা যায় নাহ সে অর্থে তুশি ক্যারেক্টার টা প্লে করা চারটিখাটি কথা ছিল নাহ তবে তাসনুভা তিশা তা দেখিয়েছেন এবং শিহাব শাহীন এর ডিরেকশনে অসাধারণ অভিনয় কতেছেন তিনি। 
একজন সাধারণ মেয়ে কিভাবে হিংস্র পশুতে পরিনত হয় তা দেখানো হয়েছে "আগষ্ট ১৪" নামে এই ওয়েব সিরিজটিতে। ঐশীর ঘটনা যারা জানেন তাদের সবই জানা তবে পরিচালক গল্পটা বলার ক্ষেত্রে একটু ভিন্নতা এনেছে। ভোর সকালে তুশি তার ছোট বোন আর কাজের মেয়েকে নিয়ে বাসা থেকে বের হয়ে যায় অন্য দিয়ে পুলিশ বাসা থেকে তার বাবা-মার মৃত লাশ উদ্ধার করে। ইনভেস্টিগেশন অফিসার শতাব্দী ওয়াদুদ খুজে বেড়ায় কে মারলো তুশির বাবা-মাকে এবং তুশিই বা কোথায় গেল। তুশিকে খুজতে গিয়ে বেড়িয়ে এল আসল রহস্য। আর এই রহস্য জানতে হলে দেখতে হবে " আগষ্ট ১৪ " নামে এই ওয়েব সিরিজটি। ট্রাস্ট মি আপনি এক মিনিটের জন্য হলেও চোখ সরাতে পারবেন নাহ আর এটার দেখে তুশি নামের মেয়েটাকে প্রচন্ড রকম ঘৃনা করবেন আর এখানেই প্রাপ্তির আসল জায়গাটা যেটা পরিচালক শিহাব শাহীন দেখিয়েছেন।


জনরা- থ্রিলার
ডিরেক্টর -আশগফাক নিপুণ 
কাস্ট-মোসারফ করিম,শ্যামল মওলা, মম।
পারসোনাল রেটিং -৭
রিলিজ - ২৫ জুন ২০২১

রিভিউ দেওয়ার কিছু নেই কেননা মহানগরের পজিটিভ রিভিউ গ্রুপে অহরহ। দু একটা দিক ছাড়া মহানগর দুর্দান্ত ছিল সেটা বলার অপেক্ষা রাখে নাহ। 
এবার আছি মহানগরের ভাল না লাগার কয়েকটা দিক নিয়ে, প্রথমত চিত্র‍নাট্য একটু দূর্বল মনে হয়েছে। জয়নাল আর আবিবের গার্লফ্রেন্ডের ক্যারেক্টার না থাকলেও গল্পটা দারুন ভাবে এগিয়ে যেত,আফনান শিল্পপতি ও রাজনৈতিক ক্ষমতাবান এর ছেলে সেটা কয়েকটা সংলাপ ছাড়াও উপায় নেই সে এতটা ক্ষমতাধরের ছেলে তা ছাড়া পার্টির অ্যারেঞ্জমেন্টটাও ভাল লাগে নাই। সব মিলিয়েই আমার রেটিং-৭, পছন্দের চতুর্থ নাম্বার।


জনরা- পলিটিকাল থ্রিলার
ডিরেক্টর - - তানিম নূর, কৃষ্ণেন্দু চট্টোপাধ্যায় 
কাস্ট-আরিফিন শুভ,চঞ্চল চৌধূরী, মম
পারসোনাল রেটিং -৬.৫
রিলিজ - ১৮ মার্চ ২০২১
কনট্রাক্ট প্রথম দিকে প্রশংসিত হলে পরে যেয়ে বেশ সমালোচিত হয়েছে যার মেইন রিজন ছিল কিছু টেকনিক্যাল ত্রুটি। দু-চারজন বাদে অনেকেই সেই সময় ভুলগুলো ধরতে পারে নাই বিশেষ করে RnaR রিভিউ এর পর টেকনিক্যাল ত্রুটিগুলো সবার সামনে আছে। টেকনিক্যাল ত্রুটি হলিউড, বলিউড বড় বড় মুভিতেও হয়, আপনি যদি একমিনিটের জন্য যদি টেকনিক্যাল ভুলগুলো সরিয়ে রাখেন তাহলে কেমন ছিল " কন্ট্রাক্ট"? 
আরেকটা ইস্যু ছিল উপন্যাস অনুযায়ী হয় নি। উপন্যাস টা একদিন পড়ে তারপর বাদ দিয়ে দেই কেননা কন্ট্রাক্ট উপন্যাসের লেখক মোহাম্মদ নাজিম উদ্দীন বলেছিলেন। উপন্যাস আর ওয়েব সিরিজ যেন মিলিয়ে না ফেলি তার ফলে বইটি পড়া বাদ দিয়ে দেই। তাই কন্ট্রাক্ট দেখার সময় আমি ভীষন ইনজয় করেছি। মূলত একজন লেখক কল্পনার জগৎতে গিয়ে যতটা হাত খুলে লিখতে পারে, একজন পরিচালক তা পুরোপুরি কভার করতে পারে নাহ অন্তত আমাদের বাজেট আর সীমাবদ্ধতা জন্য হলেও পারে নাহ। সব মিলিয়ে আমি কন্ট্রাক্ট ওয়েব সিরিজটি দারুন ভাবে উপভোগ করেছি।

বাই দ্যা ওয়ে
ঢাকা মেট্রোও আমার খুব পছন্দের একটা ওয়েব সিরিজ, টপ ফাইভ থেকে ঢাকা মেট্রোও কোন অংশে কম নাহ। যারা এখনো দেখেন নি এই পাচটা ওয়েব সিরিজ দেখে ফেলুন, সময় বিফলে যাবে নাহ

হ্যাপি ওয়াচিং🖤...

Written by: S K Ramjan

SHARE THIS

0 comments: